You are here
Home > বাংলাদেশ > জেলার সংবাদ > কুমারখালীতে তিন বছরের ভালোবাসা বিক্রি হলো প্রায় ২ লক্ষ টাকায়

কুমারখালীতে তিন বছরের ভালোবাসা বিক্রি হলো প্রায় ২ লক্ষ টাকায়

Share

 

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি ঃ মোঃমোমিন ইসলাম

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে বিয়ের দাবীতে প্রেমিকের বাড়ির প্রধান ফটকের সামনে ৩ দিন অবস্থান ও অনশনের ঘটনায় অবশেষে ১লাখ ৮০ হাজার টাকায় রফা হয়েছে বলে জানা গেছে। গত ২৬ মে থেকে যদুবয়রা ইউনিয়নের জোতমোড়া গ্রামের শহিদ শেখের ছেলে সবুজ হোসেনের বাড়িতে তার প্রেমিকা বিয়ের দাবীতে এই অনশন করে। শুক্রবার রাতে টাকার বিনিময়ে প্রেমিকা ফিরে গেছে তার গন্তব্যে।

অনশনরত প্রেমিকা শিলা খাতুন জানান, সবুজের সাথে তার বিদ্যালয়ে পড়াকালীন বন্ধুত্ব ছিলো। গত তিন বছর যাবত তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। সবুজ ডেসকো /ডিপিডিসি তে চাকরী করে এবং সে আশুলিয়া একটি গার্মেন্টস ফ্যাক্টরীতে আছে। স্বামী স্ত্রীর পরিচয়ে তার ঢাকার বাসায় সবুজ একাধিক রাত্রি যাপন করেছে। গত কিছুদিন যাবত সবুজের পরিবার থেকে অন্য মেয়ের সাথে বিয়ের জন্য চাপ দিচ্ছে বলে জানায় এবং এ ও জানায় সে কখনও অন্য মেয়েকে বিয়ে করবেনা না। কিন্তু হটাৎ করেই ৪/৫ দিন আগে সবুজ তাকে বলে তার মা স্ট্রোক করেছে পারিবারিক ভাবে ঠিক করা মেয়ের সাথে বিয়ে করাই লাগছে নাহলে মাকে বাঁচানো যাবেনা। তারপর থেকেই সবুজের ফোন বন্ধ এবং তার নাম্বার ব্লাক লিষ্টে দিয়েছে। যোগাযোগ করতে না পেরে সবুজের বাড়িতে এসে জানতে পারে তার দুঃসম্পর্কের বোনের সাথে বিয়ের কথা। যে কারনে সে সবুজের বাড়ির সামনে অনশন করছে।

অবশেষে প্রেমিকের বাড়িতে অবস্থান ও অনশনের তৃতীয় দিনে শিলা খাতুন শুক্রবার রাতে স্থানীয় কিছু ব্যক্তিদের সহায়তায় ১ লাখ ৮০ হাজার টাকার বিনিময়ে তার ভালোবাসা বিক্রি করেছে বলে এলাকাবাসী জানান।

Leave a Reply

Top