You are here
Home > বাংলাদেশ > জেলার সংবাদ > সন্ত্রাসী ভেবে র‍্যাব সদস্যকে গণধোলাই,বাঁচতে ফাঁকা গুলিবর্ষণ

সন্ত্রাসী ভেবে র‍্যাব সদস্যকে গণধোলাই,বাঁচতে ফাঁকা গুলিবর্ষণ

Share

এনামুল হক ইমন কুমারখালী প্রতিনিধি :

কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার শিলাইদহে র‍্যাব সদস্য গণধোলাইয়ের শিকার হয়েছেন। সোমবার রাতে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের স্মৃতি বিজরিত কুঠিবাড়ির প্রধান ফটক সংলগ্ন দোকানীরা র‍্যাব সদস্যদের উপর হামলা করে। গণধোলাই থেকে বাঁচতে ফাঁকা গুলিবর্ষণ করে র‍্যাব।এ ঘটনায় দুজনকে আটক করেছে র‍্যাব।

আটককৃতরা হলেন শিলাইদহ ইউনিয়নের দাড়িগ্রামের জামাল মালিথার ছেলে মিঠন এবং একই ইউনিয়নের বেলগাছি গ্রামের আকমল হোসেনের ছেলে উজ্জ্বল।

স্থানীয়রা জানান, পাবনা থেকে র‍্যাব ১২ এর ৪ জন সদস্য সাদা পোষাকে পরিচয় গোপন রেখে সোমবার বিকেল ৫ টার দিকে শিলাইদহ কুঠিবাড়ির মূল ফটকের সামনে বিভিন্ন দোকান থেকে বেশকিছু চাকু ও টিপ চাকু উদ্ধার করেন। চাকু উদ্ধার শেষে মিঠন ও উজ্জ্বলের হাতে হ্যান্ডকাপ লাগিয়ে নিজেদের
র‍্যাব সদস্য বলে পরিচয় দেন এবং কুষ্টিয়া অভিমুখে না গিয়ে শিলাইদহের পদ্মা নদীর দিকে অগ্রসর হলে দোকানীরা তাদের ভুয়া র‍্যাব ভেবে হামলা করে। এসময়
র‍্যাব সদস্যরা নিজেদের রক্ষা করতে ফাঁকা গুলিবর্ষণ করেন। একজন র‍্যাব সদস্য গুরুতর আহত হয়েছেন বলে জানান তারা। এই ঘটনার পর থেকে কুঠিবাড়িতে বিভিন্ন ব্যবসায়ীরা দোকান বন্ধ রেখেছেন এবং এলাকায় থমথমে পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে।

এ বিষয়ে কুমারখালী থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) রাকিব হাসান জানান, আমরা সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে জানতে পারি কুঠিবাড়িতে পাবনা থেকে র‍্যাব ১২ এর সদস্য আসছিল, স্থানীয়দের সাথে কথা কাটাকাটির জেরে তাদের ওপর হামলা চালায় এবং একজন র‍্যাব সদস্য আহত হবার খবর শুনেছি। কিছু চাকু উদ্ধার করেছে এবং দুজন দোকানীকে আটক করে নিয়ে গেছে।

Leave a Reply

Top