You are here
Home > বাংলাদেশ > জাতীয় > ৫৯৬ বোতল ফেন্সিডিল ও ৩১ কেজি গাঁজাসহ ০৩ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-২

৫৯৬ বোতল ফেন্সিডিল ও ৩১ কেজি গাঁজাসহ ০৩ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-২

Share

রাজধানীর কাওরান বাজার এলাকা থেকে ৫৯৬ বোতল ফেন্সিডিল ও ৩১ কেজি গাঁজাসহ ০৩ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত মাইক্রোবাস জব্দ।

বাংলাদেশ আমার অহংকার এই শ্লোগান নিয়ে র‌্যাব প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই জঙ্গী, সশস্ত্র সন্ত্রাসী, জলদস্যু গ্রেফতার সহ মাদক দ্রব্য উদ্ধারে অগ্রণী ভূমিকা পালন করে আসছে। সমাজে মাদকের ভয়াল থাবার বিস্তার রোধকল্পে মাদক বিরোধী অভিযানে অন্যান্য আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পাশাপাশি র‌্যাব নিয়মিত আভিযানিক কার্যক্রমের মাধ্যমে মাদকের চোরাচালান, চোরাকারবারী, চোরাচালানের রুট, মাদকস্পট, মাদকদ্রব্য মজুদকারী ও বাজারজাতকারীদের চিহ্নিত করে তাদের গ্রেফতারসহ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করে যাচ্ছে। র‌্যাব-২ সব সময়ই মাদকের বিরুদ্ধে বলিষ্ঠ অবদান রেখে চলেছে। এরই ধারাবাহিকতায় ০৯/০২/২০২১খ্রিঃ তারিখ ২১.১০ ঘটিকায় র‌্যাব-২ এর আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে যে, সীমান্তবর্তী এলাকা হতে একটি মাইক্রোবাস গাড়িতে করে ফেন্সিডিল ও গাঁজা (মাদকের) একটি বড় চালান নিয়ে রাজধানীর ঢাকার কাওরানবাজার হয়ে হাতিরঝিল এলাকায় মাদক ব্যবসায়ীদের নিকট হস্তান্তরের জন্য আসছে। প্রাপ্ত সংবাদের সত্যতা যাচাইয়ের নিমিত্তে র‌্যাবের আভিযানিক দল ২১.৩০ ঘটিকায় রাজধানীর তেজগাঁও থানাধীন কাওরান বাজারস্থ টিসিবি ভবনের সামনে পাকা রাস্তার উপর চেক পোস্ট স্থাপন করে সন্দেহজনক মাইক্রোবাস থামিয়ে তল্লাশী করতে থাকে । অতপর ২১.৪৫ ঘটিকার সময়  সাদা রংয়ের ১টি মাইক্রোবাস গাড়ি উক্ত স্থানে পৌঁছালে গাড়িটি সন্দেহ হলে থামার জন্য সংকেত দিলে র‌্যাবের উপস্থিত টের পেয়ে গাড়ি থামিয়ে কৌশলে পালানোর চেষ্টাকালে আসামী ১। মোঃ শাহ জালাল (৩০), ২। মোঃ আশিকুল করিম(৩৮), ৩। মোঃ রফিকুল ইসলাম (২৫),কে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃত আসামীদের ফেন্সিডিল ও গাঁজার চালান সংক্রান্ত বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে প্রথমে অস্বীকার করলেও পরবর্তীতে গাড়িতে মাদক আছে বলে স্বীকার করে। তাদের দেয়া তথ্য মতে গাড়ি ভিতরে অভিনব পন্থায় লুকায়ীত ৫৯৬ (পাঁচশত ছিয়ানব্বই) বোতল ফেন্সিডিল ও ০২টি প্লাষ্টিকের বস্তার ভিতরে পলিথিনে মোড়ানো ৩১ কেজি গাঁজা পাওয়া যায়, উদ্ধারকৃত ফেন্সিডিল ও গাঁজার বর্তমান বাজার মূল্য আনুমানিক- ১৬,৬৯,০০০/- টাকা। গ্রেফতারকৃত আসামীরা জানায়, দীর্ঘদিন যাবৎ তারা অবৈধভাবে বাংলাদেশে আসা ফেন্সিডিল ও গাঁজা(মাদক) সীমান্তবর্তী এলাকা হতে ক্রয় করে ঢাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় মাদক ব্যবসায়ী ও মাদক সেবনকারীদের নিকট চড়াদামে বিক্রয় ও সরবরাহ করে আসছিল। আসামীরা আরো জানায় তারা ইতিপূর্বে মাইক্রোবাস যোগে কয়েকটি মাদকের চালান রাজধানীর ঢাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় মাদক ব্যবসায়ীদের নিকট হস্তান্তর করেছে। ধৃত আসামীদের জিজ্ঞাসাবাদে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য যাচাই বাছাই করে ভবিষ্যতে র‌্যাব-২ এ ধরনের মাদক বিরোধী অভিযান অব্যাহত থাকবে।

এছাড়াও গ্রেফতারকৃত আসামীদেরকে জিজ্ঞাসাবাদে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য যাচাই বাচাই করে ভবিষ্যতে র‌্যাব-২ এ ধরনের মাদক বিরোধী অভিযান অব্যাহত রাখবে।

বিষয়ে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা  প্রক্রিয়াধীন।

Top