বাগেরহাটে সুপারি বাগান থেকে শিক্ষকের লাশ উদ্ধার

প্রকাশিত: ৪:৫৩ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৫, ২০২১

বাগেরহাটে সুপারি বাগান থেকে শিক্ষকের লাশ উদ্ধার
Share

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে সুপারি বাগান থেকে শহিদুল ইসলাম হাওলাদার (৫২) নামে এক মাদ্রাসা শিক্ষকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বুধবার (১৩ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে মোরেলগঞ্জ উপজেলার দাসখালী গ্রামের আলমগীর শেখের বাগান থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। শহিদুল ইসলাম হাওলাদার মোরেলগঞ্জ উপজেলার হোগলাপাশা গ্রামের আব্দুল গনি হাওলাদারের ছেলে। তিনি পিরোজপুর জেলার নামাজপুর দাখিল মাদ্রাসার শিক্ষক ছিলেন। তার এক স্ত্রী ও দুটি সন্তান রয়েছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য মো. পারভেজ হালদার বলেন, স্থানীয় বাসিন্দা সুধারানী মজুমদার বাগানের মধ্যে মরদেহ দেখতে পেয়ে আমাদের খবর দিলে আমরা পুলিশকে বিষয়টি জানাই। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে। বাগানের ভেতরে উইপোকার মাটির উপর শিক্ষক শহিদুল হাওলাদারের মরদেহ পড়েছিল।

তার গলা ও বুকের উপর ভাঙা সুপারি গাছ ছিল। তার পাশেই সুপারি গাছে ওঠার জন্য শর্তা বা বেড়ি (কাপড় বা দড়ির তৈরি এক ধরনের রশি-যা গাছে ওঠার জন্য ব্যবহৃত হয়) ছিল। ধারণা করা হচ্ছে রাতের কোনো একসময় তিনি সুপারি পাড়তে উঠেছিলেন। সেখান থেকে পড়ে এ দুর্ঘটনা ঘটে।
ইউপি সদস্য আরও বলেন, সুপারি বাগানটি তার নয়। পার্শ্ববর্তী এক ব্যক্তি ওই বাগান লিজ নিয়েছেন। কিন্তু কেন তিনি ওই বাগানে সুপারি পাড়তে গেলেন এ বিষয়ে এখন কিছু বলা যাচ্ছে না।

মোরেলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মনিরুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে আমরা শহিদুল ইসলামের মরদেহ উদ্ধার করেছি। সুরতাহাল শেষে ময়নাতদন্তের জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি রাতে সুপারি পাড়তে উঠে গাছ ভেঙে পড়ে তার মৃত্যু হয়েছে। তার শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন নেই।

 

এই সংবাদটি বার পঠিত হয়েছে

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ