বন্যায় সাপের উপদ্রব বৃদ্ধি, সাপের কামড়ে গৃহবধূর মৃত্যু।

আব্দুর রহিম বাদশা, গাইবান্ধা প্রতিনিধি
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  06:53 PM, 03 October 2020

Share

গ্রাম গঞ্জে গ্রীষ্ম থেকে বর্ষা মৌসুমে সাপের উপদ্রব বাড়ে। আর বন্যার সময় তো এমন উৎপাত আরও বেড়ে যায়।বর্ষায় গর্তে পানি ঢুকে পড়ায়, সাপ লোকালয়ে চলে আসে।আর বন্যা পরিস্থিতিতে সাপের বাসস্থান ডুবে যাওয়ায় সাপ বিভিন্ন ঘর ও বাড়ীর আশেপাশের অবস্থান নেয়।

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে চলতি বন্যায় উপজেলার ১৩ টি ইউনিয়নের শতাধিক গ্রামে বন্যার পানি প্রবেশ করেছে।এতে জানা গেছে বন্যা প্লাবিত এলাকায় সাপের উপদ্রব বৃদ্ধি পেয়েছে।এরই মধ্যেই সাপের কামড়ে এক গৃহবধূর মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

জানা গেছে,গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় বিষধর সাপের কামড়ে মঞ্জিলা বেগম (৩২) নামের এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। শনিবার(৩রা অক্টোবর) সকালে উপজেলার কোচাশহর ইউনিয়নের শোলাগাড়ী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত গৃহবধূ ওই গ্রামের সাইদুল ইসলামের স্ত্রী।

এলাকাবাসীর তথ্যে জানা গেছে, গৃহবধূ মঞ্জিলা তার বাড়ীর উঠানে কাজ করতেছিলেন।এসময় হঠাৎ বাড়ীর পাশের বন্যার পানি হতে উঠে আসা একটি বিষধর সাপ পায়ে দংশন করে।এরপর ঘটনাটি তার পরিবারের অন্য সদস্যদের জানালে তারা ওঝার সন্ধানে গ্রামে বের হয়। এর মধ্যে গৃহবধূর শরীরে বিষ ছড়িয়ে পড়লে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে কোচাশহর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আবু সুফিয়ান মন্ডল জানান হঠাৎ গৃহবধূর মৃত্যুর খবর শুনে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ প্রধান ঐ বাড়ীতে ছুটে আসেন এবং শোকশন্তপ্ত পরিবারকে সান্ত্বনা দিয়ে সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন।

আপনার মতামত লিখুন :